সৌদি আরব থেকে করোনা আক্রান্ত স্বামীর পাঠানো টাকা পেলেন না স্ত্রী

সৌদি আরব থেকে করোনা আক্রান্ত স্বামীর পাঠানো টাকা পেলেন না স্ত্রী। এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হলেও কোনো সমাধান মিলছে না।

জানা গেছে, বাউফল পৌরশহরের ২নং ওয়ার্ডের মোশারেফ হোসেন প্রায় ২৫ বছর ধরে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। সেখানে তিনি একটি খাবারের দোকানে চাকরি করেন।

বাউফলে তার স্ত্রী ফারহানা আক্তার তিন সন্তান নিয়ে থাকেন। প্রতি মাসে সৌদি আরব থেকে তার পাঠানো টাকায় তাদের সংসার চলে।

করোনার কারণে সৌদি আরবে বেশ কয়েক মাস ধরে ব্যবসাবাণিজ্য বন্ধ। অনেকটা বেকার জীবনযাপন করছেন তিনি। এরই মধ্যে করোনায় আক্রান্ত হন মোশারেফ।


এ অবস্থায় গত ১৫ জুন সৌদি আরব থেকে বিকাশের মাধ্যমে স্ত্রীর কাছে ৩০ হাজার টাকা পাঠান তিনি। ভুলে ওই টাকা অন্য নাম্বারে চলে যায়।

মোশারেফের স্ত্রী ফারহানা ওই নাম্বারে (০১৮১৫২১১৯৫৮) ফোন করে অনেক আকুতি-মিনতি করলেও অপরপ্রান্ত থেকে টাকা দেই দিচ্ছি বলে কালক্ষেপণ করে আসছেন।

একপর্যায়ে মোবাইল ফোনটি বন্ধ করে দেয়া হয়। উপায় না পেয়ে ফারহানা বাউফল থানা পুলিশের দারস্থ হন। পুলিশের পরামর্শে তিনি ২০ জুন একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।

কিন্তু এখন পর্যন্ত পুলিশ ওই নাম্বার ব্যবহারকারীকে খুঁজে বের করতে পারেনি। ফারহানা বলেন, আমার করোনা আক্রান্ত স্বামীর পাঠানো টাকা না পেয়ে সন্তানদের নিয়ে অনাহারে-অর্ধাহারে অনেক কষ্ট করছি।

এ বিষয়ে মঙ্গলবার বাউফল থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমানকে ফোন করা হলে তিনি বলেন, মিটিংয়ে আছি পরে যোগাযোগ করুন।

পরে বাউফল সার্কেলের অতিরিক্ত সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার ফারুক হোসেন বলেন, জিডির সূত্র ধরে ওই ফোন ব্যবহারকারীর অবস্থান শনাক্ত করা হয়েছে। দ্রুততম সময়ের মধ্যেই আমরা তাকে আটক করতে পারব।